কবে যে সেই বিশেষ মানুষকে সবার সঙ্গে পরিচয় করিয়ে দেব - বাংলা একাত্তর কবে যে সেই বিশেষ মানুষকে সবার সঙ্গে পরিচয় করিয়ে দেব - বাংলা একাত্তর

বুধবার, ০৮ ডিসেম্বর ২০২১, ০৩:৫১ পূর্বাহ্ন

কবে যে সেই বিশেষ মানুষকে সবার সঙ্গে পরিচয় করিয়ে দেব

কবে যে সেই বিশেষ মানুষকে সবার সঙ্গে পরিচয় করিয়ে দেব

প্রশ্ন: জন্মদিনের শুভেচ্ছা।
থ্যাংক ইউ।
প্রশ্ন: বয়স কত হলো?
মনের দিক থেকে যদি বলি, কাজ শুরু করেছি যে বয়সে, সেখানেই থেমে আছি। এখনো মনে হয়, মাত্রই তো কাজ শুরু করলাম।

প্রশ্ন: তার মানে মেয়েদের বয়স জিজ্ঞাসা করতে নেই, এই তত্ত্বে বিশ্বাসী।
না না, তা নয়। এখনো কেউ বয়স জিজ্ঞাসা করলে মনে হয়, স্কুলের সেই বয়সেই আটকে আছি। এখনো আমি ম্যাচিউরড হইনি। সিনিয়র যে হয়েছি, এই ফিল আমার মধ্যে কখনোই আসে না। আমার চারপাশে যাঁরা থাকেন, তাঁরাও এমনটাই বলেন। তবে আমার বয়স কিন্তু ওপেন, ১৯৯২ সালে জন্ম।

প্রশ্ন: জন্মদিন নিয়ে বিশেষ কোনো পরিকল্পনা?
বার্থডে বরাবরই আমার কাছে স্পেশাল। তবে কখনোই বড়সড় করে উদ্‌যাপন করিনি। ছোটবেলায় বাবা চাকরিসূত্রে যখন ভোলায় ছিল, তখন বড় আয়োজনে জন্মদিন উদ্‌যাপন করা হতো। বুদ্ধিসুদ্ধি হওয়ার পর বাসার সবাই মিলেই শুধু করতাম। এখন ভালো লাগে, রাত ১২টা বাজলেই নানা সারপ্রাইজ ও গুড উইশ পাই। আমার বিশেষ কোনো পরিকল্পনা সেভাবে না থাকলেও সন্ধ্যায় একটা পরিকল্পনা আছে, ওটার কথা তো আর আগে থেকে বলা যায় না।
প্রশ্ন: এটা কি বিশেষ মানুষের জন্য?
(হাসি) সন্ধ্যাটা তেমনই হতে পারে।

প্রশ্ন: এই বিশেষ মানুষকে প্রকাশ্যে আনবেন কবে?
কবে যে সেই বিশেষ মানুষকে সবার সঙ্গে পরিচয় করিয়ে দেব, তার কোনো পরিকল্পনা এখনো করিনি। আজ সন্ধ্যায়ও হতে পরে। আমি তো মাঝেমধ্যে ফেসবুকে ছবি দিই, কিন্তু সবাই বুঝতে পারে না।
প্রশ্ন: কত বছর ধরে মানুষটা বিশেষ?
ইশ্‌, এত কিছু কেন জানাতে হবে এখন (হাসি)!

প্রশ্ন: ভক্তরা জানতে চায়।
এবার এই পর্যন্ত, এর বেশি আর কিছু আপাতত জানাতে চাই না।
প্রশ্ন: বিশেষ মানুষটাকে নিয়েই কি আপনার ভবিষ্যৎ পরিকল্পনা?
অ্যামমমমম, এর বেশি এখন আর কিচ্ছু বলতে চাই না। আমার ব্যক্তিগত বিষয়টা ব্যক্তিগত রাখতে চাই।

প্রশ্ন: জীবনের আরেকটা বছরে পদার্পণ করলেন, জীবন নিয়ে পরিকল্পনা কী শুনি তো?
সৃষ্টিকর্তা আমাকে যা দিয়েছেন, তাতেই আমি হ্যাপি। চাইব, একইভাবে যেন জীবনের আগামী দিনগুলো পার করতে পারি। আমার কিছু স্বপ্ন আছে, সেগুলো পূরণ করতে চাই। ভালো কিছু কাজ যেন দর্শকদের উপহার দিতে পারি। করোনার কারণে প্রায় দুই বছর তো জীবন থেকে নেই হয়ে গেছে। সামনের দিনে কাজের মাধ্যমে পূরণ করতে পারি।

প্রশ্ন: চলচ্চিত্রের খবর বলুন?
মুক্তির অপেক্ষায় আছে ‘পরাণ’ ও ‘দামাল’। শুটিং বাকি আছে ‘ইত্তেফাক’ ও ‘অন্তর্জাল’ চলচ্চিত্রের। কথা হচ্ছে আরও কয়েকটি চলচ্চিত্রের।
প্রশ্ন: ১৬ বছরের পেশাগত জীবনে অনেকের সঙ্গেই কাজ করেছেন। কার সঙ্গে জড়িয়ে গুঞ্জন হয়েছে বেশি?
অনেক আগে যখন নাটকে অভিনয় করতাম, তখন সজল ভাইয়াকে নিয়ে বেশি গসিপ হতো। এমনও শুনতে হতো, সজলের সঙ্গে আমার প্রেমের সম্পর্ক। যখন তাহসান ভাইয়ের সঙ্গে কাজ শুরু করলাম, তখনো শুনেছি, আমরা প্রেম করছি। বাপ্পীর সঙ্গে পরপর তিনটা সিনেমা যখন হয়েছে, আমাকে তো তার সঙ্গে বিয়ে দিয়ে হানিমুনেও পাঠিয়ে দেওয়া হয়েছে। আমি যার সঙ্গে কাজ করেছি, তাকে ঘিরেই গসিপ হয়েছে।

প্রশ্ন: এসব গুঞ্জন কীভাবে দেখেন?
আমি এসব পাত্তা দিই না। সব সময় বিশ্বাস করি, সময়ই সবকিছু বলে দেয়। সময় হলেই সবাই সবকিছু দেখতে পারবে। অকারণে বাক্য ব্যয় করে কীই–বা লাভ।
প্রশ্ন: বলিউডের ছবি ‘খুফিয়া’ ছেড়ে দিয়েছেন। এই চলচ্চিত্রে এখন অভিনয় করছেন আপনারই আরেক সহকর্মী।
প্রত্যেকটা মানুষের চিন্তাধারা ভিন্ন। আমি তো আর ও নই, আর ও তো আর আমি নয়। ও যেভাবে চিন্তা ভাবনা করেছে, সেটা হয়তো তার ভালো মনে হয়েছে, তাই করেছে। এভাবে কাউকে বিচার করার কিছু নেই। সুত্রঃ প্রথম আলো

আপনার বন্ধুদের সাথে এই পোস্ট টি শেয়ার করুন

Comments are closed.

সাম্প্রতিক মন্তব্য

    © All rights reserved © 2018 banglaekattor.com