মঙ্গলবার, ১৩ এপ্রিল ২০২১, ০৩:২১ পূর্বাহ্ন

নিঃশর্ত ক্ষমা চেয়ে বেঁচে গেলেন ড. ইউনূস

নিঃশর্ত ক্ষমা চেয়ে বেঁচে গেলেন ড. ইউনূস

আ’দালতের কোনো আদেশ প্রতিপালন না হয়ে থাকলে- তা অনিচ্ছাকৃত উল্লেখ করে আ’দালত অ’বমাননার অ’ভিযোগে নিঃশর্ত ক্ষমা চেয়েছেন গ্রামীণ টেলিকমের চেয়ারম্যান নোবেল জয়ী অর্থনীতিবিদ ড. মুহাম্ম’দ ইউনূস এবং প্রতিষ্ঠানটির এমডি আশরাফুল হাসান।

পরে তাদের দু’জনকে ব্যক্তিগত হাজিরা থেকে অব্যাহতি দিয়েছেন হাইকোর্ট। আ’দালতের আদেশে মঙ্গলবার বিচারপতি মো. মজিবুর রহমান মিয়া ও বিচারপতি মো. কামরুল হোসেন মোল্লার ভার্চুয়াল হাইকোর্ট বেঞ্চে তারা দুজন যুক্ত হন।

পরে তাদের দু’জনের পক্ষে শুনানি করেন ব্যারিস্টার রোকন উদ্দিন মাহমুদ। তার সাথে ছিলেন ব্যারিস্টার মোস্তাফিজুর রহমান খান। সেসময় ড. মুহাম্ম’দ ইউনূস ও আশরাফুল হাসানের পক্ষে লিখিত ব্যাখ্যা আ’দালতে দাখিল করা হয়।

যেখানে বলা হয়েছে, ‘আ’দালতের আদেশ বাস্তবায়ন করা হয়েছে। তবে কোন আদেশ প্রতিপালন না হয়ে থাকলে তবে তা অনিচ্ছাকৃত। সেক্ষেত্রে আ’দালত অবমাননার অ’ভিযোগ থেকে নিঃশর্ত ক্ষমা প্রার্থনা করছি।’

শুনানির এক পর্যায়ে অপর পক্ষের আইনজীবী অ্যাডভোকেট ইউসুফ আলী ড. মুহাম্ম’দ ইউনূস ও আশরাফুল হাসানের পক্ষে দেয়া লিখিত ব্যাখ্যা সঠিক নয় দাবি করেন।

এরপর আ’দালত ড. মুহাম্ম’দ ইউনূস ও গ্রামীণ টেলিকমের ব্যবস্থাপনা পরিচালক আশরাফুল হাসানকে ব্যক্তিগত হাজিরা থেকে অব্যাহতি দিয়ে এ বি’ষয়ে পরবর্তী শুনানির জন্য আগামী ২২ এপ্রিল দিন ধার্য করেন।

এর আগে গ্রামীণ টেলিকমের ৩৮ কর্মীর বি’ষয়ে আদেশ বাস্তবায়ন না করার অ’ভিযোগে প্রতিষ্ঠানটির চেয়ারম্যান নোবেল জয়ী অর্থনীতিবিদ ড. মুহাম্ম’দ ইউনূস ও প্রতিষ্ঠানটির এমডি আশরাফুল হাসানকে তলব করেন হাইকোর্ট।

গ্রামীণ টেলিকমের শ্র’মিক ইউনিয়নের সভাপতি মো. কামারুজ্জামানের করা আ’দালত অবমাননার আবেদনে শুনানি নিয়ে গত ১৮ ফেব্রুয়ারী হাইকোর্ট এই তলব আদেশ দেন এবং ১৬ মার্চ এদের দু’জনকে ভার্চুয়াল হাইকোর্ট বেঞ্চে যুক্ত হয়ে এ বি’ষয়ে ব্যাখ্যা দিতে বলা হয়।

এছাড়াও ড. মুহাম্ম’দ ইউনূস ও আশরাফুল হাসানের প্রতি ওইদিন হাইকোর্ট অবমাননার রুলও জারি করা হয়।

আপনার বন্ধুদের সাথে এই পোস্ট টি শেয়ার করুন

Comments are closed.

সাম্প্রতিক মন্তব্য

    © All rights reserved © 2018 banglaekattor.com