ক্ষমা না চাইলে মামলা হবে নোবেলের বিরুদ্ধে

| আপডেট :  ১৫ আগস্ট ২০২২, ০৯:৩২ অপরাহ্ণ | প্রকাশিত :  ১৫ আগস্ট ২০২২, ০৯:৩২ অপরাহ্ণ

নিজের ভেরিফায়েড ফেসবুক পেজে জাতীয় সংগীত নিয়ে বিতর্কিত মন্তব্য করায় কণ্ঠশিল্পী মাইনুল আহসান নোবেলকে আইনি নোটিশ পাঠিয়েছেন চট্টগ্রামের এক আইনজীবী। রোববার ডাকযোগে নোবেলের ঢাকার বাসার ঠিকানায় এ নোটিশ পাঠান মিঠুন বিশ্বাস নামে ওই আইনজীবী।

নোটিশ পাওয়ার সাত দিনের মধ্যে ফেসবুকে তার দেওয়া পোস্টগুলো সরিয়ে নিয়ে নিঃশর্ত ক্ষমা চাইতে বলা হয়েছে নোবেলকে। অন্যথায় তার বিরুদ্ধে ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনে মামলা করার কথা বলেন ওই আইনজীবী।

নোটিশে বলা হয়, গত ১০ ও ১১ আগস্ট নোবেলের ভেরিফায়েড ফেসবুক পেজ ‘নোবেল ম্যান’ থেকে রবীন্দ্রনাথ ঠাকুর ও জাতীয় সংগীত নিয়ে পৃথক দুটি পোস্ট দেওয়া হয়। তাতে মনগড়া, ভিত্তিহীন, কাল্পনিক, বিদ্বেষমূলক মন্তব্যের মাধ্যমে জাতীয় সংগীতের বিরুদ্ধাচার করা হয়েছে।

সেখানে আরও বলা হয়েছে, একই সঙ্গে জাতীয় সংগীতের রচয়িতা রবীন্দ্রনাথ ঠাকুরের বিরুদ্ধে আক্রমণাত্মক, মিথ্যা, মানহানিকর অপপ্রচারের মাধ্যমে দেশের প্রতিটি নাগরিকের হৃদয়ে আঘাত করেছেন। যা দেশের প্রচলিত আইন অনুযায়ী শাস্তিযোগ্য অপরাধ।

ডাকযোগে নোটিশ পাঠানোর কথা নিশ্চিত করে আইনজীবী মিঠুন বিশ্বাস গণমাধ্যমে বলেন, নোটিশ পাওয়ার সাত দিনের মধ্যে বিদ্বেষমূলক পোস্টগুলো অপসারণ করে নিজের ভুল স্বীকার করে ক্ষমা চাইতে হবে নোবেলকে। অন্যথায় তার বিরুদ্ধে ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনে মামলা করা হবে।

তবে আইনি নোটিশের বিষয়ে নোবেলের কাছ থেকে কোনো বক্তব্য পাওয়া যায়নি। তিনি ওই পোস্ট সামাজিক মাধ্যম থেকে মুছেও ফেলেননি।

উল্লেখ্য, ভারতের জি বাংলার ‘সারেগামাপা’ রিয়েলিটি শোয়ের মাধ্যমে পরিচিতি পাওয়া বাংলাদেশের মাইনুল আহসান নোবেল বিভিন্ন সময় উদ্ভট মন্তব্যের জেরে অসংখ্য মানুষের অপছন্দের পাত্র হয়ে উঠেছেন। ফলে বিভিন্ন সময় তাকে আপত্তিকর ভাষায় গালাগাল করেন নেটজনতা। এর আগেও তার বিতর্কিত মন্তব্যের কারণে তাকে পুলিশের কাছে হাজিরা দিতে হয়েছিল।