“রবীন্দ্রনাথ বাংলাদেশের কবিদের সঠিক মূল্যায়ন করেননি, এদেশে চর্চা হয় এটাই বেশি”

| আপডেট :  ৩০ জুলাই ২০২২, ০১:৩৩ অপরাহ্ণ | প্রকাশিত :  ৩০ জুলাই ২০২২, ০১:৩৩ অপরাহ্ণ

হিরো আলমের পাশে দাঁড়ালেন ওপার বাংলার অপর গায়ক নোবেল। কিন্তু, রবীন্দ্রনাথ ঠাকুর এবং কবি নজরুলকে নিয়ে তাঁর মন্তব্যে সমালোচনার বন্যা বইছে। ‘বিকৃতভাবে’ রবীন্দ্রসঙ্গীত গাওয়ার অভিযোগে বিদ্ধ আশরাফুল আলম ওরফে হিরো আলম। একই সঙ্গে ‘বেসুরে ‘নজরুলগীতিও গেয়েছেন বলেও উঠেছে অভিযোগ।

‘বিকৃত’ , ‘বেসুরো’ এবং ‘প্যারডি’ করে রবীন্দ্রসঙ্গীত গাওয়ার অভিযোগে সমালোচনার মুখে পড়েন হিরো আলম। তারপরেই তাঁকে তলব করে পুলিশ। এরপরেই পুলিশে মুচলেকা দিয়ে তিনি জানিয়েছেন, এবার থেকে আর বিকৃত করে গান গাইবেন না তিনি। একইসঙ্গে আর রবীন্দ্রসঙ্গীত এবং নজরুলগীতিও গাইবেন বলেও মুচলেকা দিয়েছেন তিনি।

কিন্তু এই প্রসঙ্গেই এবার বিতর্কিত মন্তব্য করেছেন গায়ক মঈনুল আহসান নোবেল। তিনি দাবি করেছেন, রবীন্দ্রনাথ এবং নজরুল কোনও ভগবান নন। আর তাঁদের গান প্যারোডি আকারে গাওয়া যাবে না এমন কোথাও বলা নেই। “যে রবীন্দ্রনাথ এদেশের কবিদের মূল্যায়ন করে যাই নাই তারে নিয়ে যে এদেশে চর্চা হয় এটাই রবীন্দ্রনাথের জন্য বেশি” , লিখেছেন নোবেল।

শুক্রবার ফেসবুকে একটি পোস্টে নোবেল লিখেছেন, রবীন্দ্রনাথ এবং নজরুল দেবতা না যে তাদের গান প্যারোডি আকারে গাওয়া যাবে না! তিনি লেখেন, “ যে রবীন্দ্রনাথ এ দেশের কবিদের মূল্যায়ন করে যাই নাই তারে নিয়ে যে এদেশে চর্চা হয় এটাই রবীন্দ্রনাথের জন্য বেশি।

তাছাড়া বাংলাদেশের সাহিত্যে যেহেতু রবীন্দ্রনাথের অবদান নিতান্তই কম, নেই বললেই চলে, সেক্ষেত্রে তার গান এদেশের কেউ যদি প্যারোডি আকারে গায় সেটা রবীন্দ্রনাথের জন্যই মঙ্গলজনক।”

ফেসবুকে এই পোস্ট করার পরেই নেটিজেনরা নোবেলের তীব্র সমালোচনা করেছেন। তাঁদের মতে, এখন আর নোবেলের গান কেউ শুনতে চাইছে না। তাই এই ধরণের মন্তব্য করে নিজের অস্তিত্ব জানান দিতে চাইছেন তিনি। নিজেকে টিকিয়ে রাখার লড়াইয়ে এই ধরনের মন্তব্য করছেন গায়ক নোবেল।