মৌসুমীর দিকে ‘খারাপ’ নজর ছিল জায়েদ খানের: ওমর সানী

| আপডেট :  ১৪ জুন ২০২২, ০৪:১৩ অপরাহ্ণ | প্রকাশিত :  ১৪ জুন ২০২২, ০৪:১৩ অপরাহ্ণ

বাংলা একাত্তর ডেস্কঃ দিন যত বাড়ছে ওমর সানী- মৌসুমী-জায়েদ ইস্যু নিয়ে বেড়িয়ে আসছে জানা অজানা নানা তথ্য। এই ইস্যু নিয়ে নেটিজেন ও বিনোদন পাড়া এখন আলোচনা ও সমালোচনার কেন্দ্রবিন্দু। গেল শুক্রবার ডিপজলের ছেলের বিয়েতে এই ঘটনার সুত্রপাত । এবার মৌসুমীর দিকে ‘খারাপ’ নজর ছিল জায়েদ খানের এমন বক্তব্য গণমাধ্যমকে দিয়েছেন সানী।

সেই বিয়ের অনুষ্ঠানে স্ত্রীকে (মৌসুমী) অসম্মান করার অভিযোগে জায়েদ খানকে চড় মারেন ওমর সানী (স্বামী)। এসময় সানীকে গুলি করার হুমকি দেন জায়েদ, এমন অভিযোগ তুলেছেন ওমর সানী। গত রবিবার শিল্পী সমিতির কাছে জায়েদ খানের বিরুদ্ধে মৌসুমীকে হয়রানি ও সংসার ভাঙার চেষ্টা করার অভিযোগ করেন সানী।

শিল্পী সমিতিতে অভিযোগ দেওয়ার একদিন পরেই মুখ খুলেছেন মৌসুমী। যেখানে জায়েদ খানের পক্ষ নিতেই দেখা গেছে মৌসুমীকে। এক অডিওবার্তায়, স্বামীর এসব দাবিকে মিথ্যা বলেন মৌসুমী। একইসঙ্গে জায়েদ খানকে অনেক ভালো ছেলে বলেও সম্বোধন করেন মৌসুমী।

ওমর সানী বলেন, আমি যা বলেছি স্পষ্ট করেই বলেছি। আমি শ্রদ্ধা রেখেই কথা বলতে চাই। আমার পরিবারের প্রতি, মৌসুমীর প্রতি আমার প্রচণ্ড শ্রদ্ধা আছে, আমার ছেলে-মেয়ের প্রতি আমার শ্রদ্ধা আছে। সে যা বলেছে, কি ভেবে বলেছে আই ডোন্ট নো। এ বিষয়টি নিয়ে কিছুদিন যাবৎ একটু দূরত্ব তো চলছিল। চেষ্টা করছিলাম। কিন্তু আপনারা ভালো জানবেন, ফোন রেকর্ড অনুযায়ী তার সাথে আমার ফোনেও কথা হচ্ছিল না। আমি তার ব্যাপারে মন্দ কথা, খারাপ কথা কিছুই বলবো না। কারণ সে স্টিল নাও আমার স্ত্রী। আমার সন্তানের মা।\

সানী আরও বলেন, ‘বেশ কিছুদিন ধরেই আমি দেখছিলাম মৌসুমীর দিকে জায়েদ খানের একটা খারাপ নজর রয়েছে। তাকে আমি বিষয়টা নিয়ে বেশ কয়েকবার সাবধানও করেছিলাম। তবুও দীর্ঘদিন ধরে মৌসুমীকে বিরক্ত করে আসছে। ইজ্জতের জন্য বিষয়টা নিয়ে চুপ ছিলাম। পরে ডিপজল মামাকে বিষয়টা জানাই। এরপর ১০ তারিখে তার ছেলের বিয়েতে আমার জায়েদ খানের সঙ্গে দেখা হয়। ওকে সামনে পেয়েই আমি চড় বসাই। সঙ্গে সঙ্গে, ও কোমরে হাত দিয়ে পিস্তল বের করার ভঙ্গিমায় আমাকে হুমকি দেয়।