কুকুর বলায় একই পরিবারের ৬ জনকে কামড়িয়ে জখম করল যুবক - বাংলা একাত্তর কুকুর বলায় একই পরিবারের ৬ জনকে কামড়িয়ে জখম করল যুবক - বাংলা একাত্তর

মঙ্গলবার, ২৪ মে ২০২২, ০৫:৫৯ পূর্বাহ্ন

কুকুর বলায় একই পরিবারের ৬ জনকে কামড়িয়ে জখম করল যুবক

কুকুর বলায় একই পরিবারের ৬ জনকে কামড়িয়ে জখম করল যুবক

সারাদেশ: পটুয়াখালীতে কুকুর বলে গালি দেওয়ার সূত্র ধরে একই পরিবারের ৬ জনকে কামড়িয়েছে কালাম সর্দার নামের এক যুবক। শুক্রবার বিকেলে পটুয়াখালীর দুমকি উপজেলা আঙ্গারিয়া ইউনিয়নের পশ্চিম ঝাঁটরা গ্রামের ঘটনা এটি।

জানা গেছে, কালাম সর্দার এবং আনোয়ার শিকদার এই দুজনের মধ্যে জমি সংক্রান্ত বিষয় নিয়ে দীর্ঘদিনের বিরোধ ছিল। শুক্রবার বিকেলে কালাম সর্দার বাড়ি থেকে বের হবার পথে প্রতিবেশী বাবুল হাওলাদারের ১০ বছর বয়সি ছেলে তাকে (কুত্তা) কুকুর বলে গালি দেয়। এই ঘটনায় কালাম সর্দার ক্ষিপ্ত হয়ে তার পরিবারের লোকজন নিয়ে আনোয়ার শিকদার এবং সত্তার শিকদারের বসতবাড়িতে হামলা চালায়। দুই পক্ষ সংঘর্ষে জড়িয়ে পড়লে আনোয়ার শিকদারের পরিবারের ৬ জনকে কামড়িয়ে জখম করে কালাম সর্দারের পরিবারের লোকজন।

আহতরা হলেন—মাসুদা বেগম (৫০), সুমাইয়া আক্তার (২০), ৬ মাসের শিশু রাইয়ান, শাকিল (১৪), লাভলী (২৭) ও তাসমিম (১২)। বর্তমানে আহতরা সবাই উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে চিকিৎসা নিচ্ছেন।

আনোয়ার শিকদারের স্ত্রী লাভলী বেগম বলেন, পাশের বাড়ির একটা ছেলে কালাম সর্দারকে গালি দিলে তিনি ক্ষিপ্ত হন। আর মনে মনে ধারণা করেন যে এটা আমরা ওই ছেলেকে শিখিয়ে দিয়েছি। তাই আমাদের বসতঘর ভাঙচুরসহ আমাদের ৬ জনকে কামড়িয়ে আহত করেছেন তিনি।

কলাম সর্দারের ভাতিজি মানসুরা আক্তার বলেন, জমি নিয়ে তাদের সাথে আমাদের আগে বিরোধ আছে। শুক্রবার মারামারি হয়েছে তবে কামড়ের বিষয়টি মিথ্যা। কিছুদিন আগেই ওরা আমার পরিবারের লোকজনকে মেরেছে ও জমি দখল করে নিয়েছে।

স্থানীয় ইউপি সদস্য মো. মিজান সর্দার বলেন, এই দুই পরিবার খুবই খারাপ। বিগত দিনগুলোতে ও এরা বিভিন্ন সময়ে ঝগড়া-বিবাদ এবং মারামারিতে লিপ্ত হয়েছে। দুমকি থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা আব্দুস সালাম বলেন, এখন পর্যন্ত থানায় কোনো অভিযোগ পাওয়া যায়নি তবে অভিযোগ পেলে আইনে ব্যবস্থা নেয়া হবে।

আপনার বন্ধুদের সাথে এই পোস্ট টি শেয়ার করুন

Comments are closed.

সাম্প্রতিক মন্তব্য

    © All rights reserved © 2018 banglaekattor.com