সেহরি খাওয়া অবস্থায় ফজরের আজান শুরু হলে যা করবেন - বাংলা একাত্তর সেহরি খাওয়া অবস্থায় ফজরের আজান শুরু হলে যা করবেন - বাংলা একাত্তর

রবিবার, ২২ মে ২০২২, ০৫:১৮ পূর্বাহ্ন

সেহরি খাওয়া অবস্থায় ফজরের আজান শুরু হলে যা করবেন

সেহরি খাওয়া অবস্থায় ফজরের আজান শুরু হলে যা করবেন

প্রশ্ন : সেহরি খাওয়া অবস্থায় ফজরের আজান হয়ে গেলে করণীয় কী?
উত্তর : সেহরি খাওয়া অবস্থায় ফজরের আজান হয়ে গেলে সঙ্গে সঙ্গে খাওয়া বন্ধ করতে হবে। যথারীতি রোজা পালন করবেন। তবে সেহরির শেষ সময়ের পর ভুলক্রমে বা অনিচ্ছাকৃত পানাহার করায় রোজা ভঙ্গ হয়েছে বিধায় এই রোজাটি রমজানের পর পুনরায় কাজা করতে হবে।

কিন্তু আজান শোনার পরও যদি পানাহার বন্ধ না করেন, তাহলে কাজা ও কাফফারা আদায় করতে হবে। কারণ, প্রথমে ভুলবশত খাওয়া হলেও পরে ইচ্ছাকৃত খাওয়ার দ্বারা রোজা ভঙ্গ করা হয়েছে।

স্মর্তব্য, আজান কখনও সেহরির সময়ের মধ্যে দেওয়া হয় না; আজান ফজরের ওয়াক্ত হওয়ারও একটু পরে দেওয়া হয়। কারণ, সেহরির সময় বাকি থাকলে ফজরের ওয়াক্ত হয় না। আর ওয়াক্ত হওয়ার আগে আজান দিলে আজান আদায় হবে না।

মনে রাখতে হবে, আজান হলো ফজরের নামাজের জন্য, সেহরি খাওয়া বন্ধ করার জন্য নয়। তাই সেহরি এর আগেই বন্ধ করতে হবে।
উল্লেখ্য, হাদিস শরিফে যে আজানের পরেও খাওয়ার কথা আছে, তা হলো তাহাজ্জুদের আজান; ফজরের আজান নয়। যা এখনও মক্কা ও মদিনায় প্রচলিত আছে। (ফাতাওয়ায়ে আলমগিরি)।

আপনার বন্ধুদের সাথে এই পোস্ট টি শেয়ার করুন

Comments are closed.

সাম্প্রতিক মন্তব্য

    © All rights reserved © 2018 banglaekattor.com