রড দিয়ে পি’টিয়ে স্বামীকে হ’ত্যা, পায়ে ধরেও রক্ষা করতে পারেননি স্ত্রী! - বাংলা একাত্তর রড দিয়ে পি’টিয়ে স্বামীকে হ’ত্যা, পায়ে ধরেও রক্ষা করতে পারেননি স্ত্রী! - বাংলা একাত্তর

মঙ্গলবার, ২৪ মে ২০২২, ০৫:০৬ পূর্বাহ্ন

রড দিয়ে পি’টিয়ে স্বামীকে হ’ত্যা, পায়ে ধরেও রক্ষা করতে পারেননি স্ত্রী!

রড দিয়ে পি’টিয়ে স্বামীকে হ’ত্যা, পায়ে ধরেও রক্ষা করতে পারেননি স্ত্রী!

নারায়ণগঞ্জের ফতুল্লার বক্তাবলীতে র’ড দিয়ে পি’টিয়ে এক ব্যক্তিকে হ’’ত্যা করা হয়েছে। নি’হতের নাম আলমগীর হোসেন। তাকে পেটানোর সময় তার স্ত্রী হা’মলাকারীদের পায়ে ধরেও মা’রধর থেকে রক্ষা করতে পারেননি। ইতোমধ্য মা’রধরের সেই ভিডিও ফেসবুকে ভাইরাল হয়েছে।

এ ঘটনায় দা’য়ের হ’’ত্যা মা’মলার প্রধান দুই আ’সামিকে আজ ঢাকার শান্তিনগর এলাকায় অ’ভিযান চা’লিয়ে গ্রে’ফতার করেছে র‍্যা’ব-১১। গ্রে’ফতার দুজন হলেন ওমর ফারুক (৪৬) ও আব্দুল আলী (৬০)।

শুক্রবার বেলা বেলা ১১টায় আদমজীতে র‍্যা’ব ১১ এর সদর দপ্তরে এক সংবাদ সম্মেলনে এসব তথ্য জানানো হয়। র‍্যা’ব ১১ এর অধিনায়ক লে. কর্নেল তানভীর মাহমুদ পাশা জানান, গ্রে’ফতার দুই আ’সামিকে নারায়ণগঞ্জ জে’লার ফতুল্লা থানায় হস্তান্তরের কার্যক্রম প্রক্রিয়াধীন।
গত ২১ মার্চ বক্তাবলী ইউনিয়নের লক্ষ্মীনগর এলাকায় আলমগীর হোসেন হ’’ত্যাকাণ্ড হয়। এ ঘটনায় ভি’কটিমের স্ত্রী বা’দী হয়ে ফতুল্লা থানায় একটি হ’’ত্যা মা’মলা করেন।

মা’মলার এজাহার সূত্রে জানা যায়, নি’হত আলমগীর হোসেন (৩৪) গ্রে’ফতার আসমি আব্দুল আলীর তিশা ব্রিক ফিল্ড ও ওমর ফারুকের মারুফা ব্রিক ফিল্ডে লোড আনলোডের কাজ করতেন। পূর্বশ’ত্রুতার জের ধরে গত ২১ মার্চ এই দুইজনসহ আরও ৩০-৩৫ জন আলমগীরকে লো’হার র’ড দিয়ে এলোপাতাড়ি পি’টিয়ে হাত-পা-দাঁত ভে’ঙে দেন।সেইসঙ্গে ধা’রালো চাকু দিয়ে আ’ঘাত করে শরীরের বিভিন্ন স্থানে জ’খম করেন।

পরবর্তীতে আ’শঙ্কাজনক অবস্থায় ভি’কটিমকে উ’দ্ধার করে পুলিশ। এরপর তাকে ভিক্টোরিয়া হাসপাতালে পাঠানো হয়। কিন্তু সেখানে কর্তব্যরত চিকিৎসক উন্নত চিকিৎসার জন্য তাকে ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নিয়ে যেতে বলেন।

পরবর্তীতে ভি’কটিমকে উন্নত চিকিৎসার জন্য ঢাকার একটি প্রাইভেট হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। সেখানে তিনি চিকিৎসাধীন অবস্থায় মা’রা যান।

আপনার বন্ধুদের সাথে এই পোস্ট টি শেয়ার করুন

Comments are closed.

সাম্প্রতিক মন্তব্য

    © All rights reserved © 2018 banglaekattor.com