বোরখা খুলে আসার পরেই ছাত্রীকে বসতে দেয়া হলো পরীক্ষায় - বাংলা একাত্তর বোরখা খুলে আসার পরেই ছাত্রীকে বসতে দেয়া হলো পরীক্ষায় - বাংলা একাত্তর

মঙ্গলবার, ২৪ মে ২০২২, ০৫:০৬ পূর্বাহ্ন

বোরখা খুলে আসার পরেই ছাত্রীকে বসতে দেয়া হলো পরীক্ষায়

বোরখা খুলে আসার পরেই ছাত্রীকে বসতে দেয়া হলো পরীক্ষায়

বোরখা খুলে আসার পরেই ভারতের কর্নাটকের স্কুলপড়ুয়া ছাত্রীকে পরীক্ষায় বসতে দেয়া হলো। রাজ্যে দশম শ্রেণীর পরীক্ষা আজ থেকে শুরু হয়েছে। রাজ্য সরকার স্পষ্টভাবে জানিয়ে দিয়েছে, হিজাব খুলে এলে তবেই পরীক্ষায় বসা যাবে।

হুবলি জেলার একটি কেন্দ্রে আজ এক ছাত্রী বোরখা পরে পরীক্ষা দিতে এসেছিল। তাকে পোশাক বদলে আসতে বলা হয়। ওই ছাত্রী সেই নির্দেশ মেনে পোশাক পাল্টে আসার পরেই তাকে পরীক্ষায় বসতে দেয়া হয়েছে।

তবে কর্তৃপক্ষ এজন্য ছাত্রীটিকে অতিরিক্ত সময় বরাদ্দ করেছে। একই ধরনের ঘটনা ঘটেছে বাগালকোট জেলার একটি পরীক্ষাকেন্দ্রে। সেখানেও পরীক্ষার্থী ছাত্রীটিকে বোরখা খুলে আসতে বলে কর্তৃপক্ষ। কিন্তু সেই নির্দেশ মেনে নেয়নি ওই ছাত্রী। এমনকি, পরীক্ষায় বসেনি সে।

বিজেপিশাসিত কর্নাটকের একাধিক মন্ত্রী জানিয়ে দিয়েছেন, পরীক্ষার সময়ে হিজাব নিয়ে হাইকোর্টের নির্দেশ মেনে চলবে সরকার। রাজ্যের স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আরাগা জ্ঞানেন্দ্র জানিয়েছেন, নিয়ম ভাঙলে ব্যবস্থা নেয়া হবে। সরকার এই বিষয়ে কোনো আপস করবে না। পরীক্ষা দেয়া যাবে হিজাব খুলে রেখেই।

শিক্ষামন্ত্রী বি সি নরেশ বলেছেন, সরকারি নিয়ম ভাঙলে ব্যবস্থা নেবে পুলিশ। কর্নাটকে ৮ লাখ ৭৪ হাজার পড়ুয়া এ বছর দশম শ্রেণীর পরীক্ষায় বসেছে।হিজাব নিয়ে কর্নাটক হাইকোর্টের রায়কে পরীক্ষার সময়ে রূপায়ণ করতে নেমেছে রাজ্য সরকার। আর ওই রায়ের বিরুদ্ধে সুপ্রিম কোর্টের দ্বারস্থ হয়েছে অল ইন্ডিয়া মুসলিম পার্সোনাল ল বোর্ড।

শীর্ষ আদালত অবশ্য বিষয়টি নিয়ে দ্রুত শুনানি করতে রাজি হয়নি। গত সপ্তাহেই সুপ্রিম কোর্টের প্রধান বিচারপতি জানিয়ে দিয়েছেন, এই বিষয়টির সাথে পরীক্ষার কোনো সম্পর্ক নেই।সূত্র : আনন্দবাজার

আপনার বন্ধুদের সাথে এই পোস্ট টি শেয়ার করুন

Comments are closed.

সাম্প্রতিক মন্তব্য

    © All rights reserved © 2018 banglaekattor.com