বাপ্পী চৌধুরী জিতেছেন সেরা অভিনেতার অ্যাওয়ার্ড - বাংলা একাত্তর বাপ্পী চৌধুরী জিতেছেন সেরা অভিনেতার অ্যাওয়ার্ড - বাংলা একাত্তর

রবিবার, ১৬ জানুয়ারী ২০২২, ০৩:৫৩ অপরাহ্ন

শিরোনাম :
j z y x w u t s s r
বাপ্পী চৌধুরী জিতেছেন সেরা অভিনেতার অ্যাওয়ার্ড

বাপ্পী চৌধুরী জিতেছেন সেরা অভিনেতার অ্যাওয়ার্ড

বাপ্পী চৌধুরী এই মুহূর্তে যুক্তরাষ্ট্রের নিউ ইয়র্কে রয়েছেন। গিয়েছিলেন প্রবাসী বাঙালিদের একটি অ্যাওয়ার্ড অনুষ্ঠানে। জিতেছেন সেরা অভিনেতার অ্যাওয়ার্ড। এমন একটা সময় যুক্তরাষ্ট্রে গেলেন ঠিক পরমুহূর্তেই ছিল তাঁর জন্মদিন। বাপ্পী চৌধুরীর জন্মদিন ৬ ডিসেম্বর। ভক্তরা নিশ্চই জানেন। তবে এবারের জন্মদিনটা হাজির হলো একদম ব্যতিক্রম এক অভিজ্ঞতা নিয়ে।

মাত্রই অনুষ্ঠান শেষ হয়েছে। এরপর অবারিত অবসর। জন্মক্ষণ উঁকি দিয়ে যাচ্ছে। উপস্থাপক দেবাশীষ বাপ্পীকে নিয়ে এলেন ম্যানহাটনের টাইমস স্কয়ারে। দেবাশীষ চমকে দিলেন বাপ্পীকে। ভালোবাসার রঙ খ্যাত এই নায়কের জন্মদিন পালিত হলো টাইমস স্কয়ারে। কেক যোগাড় করে আনলেন। বাংলা চলচ্চিত্র অভিনেতা বাপ্পী চৌধুরীর জন্মদিনের কেক কাটা হলো টাইমস স্কোয়ারে।

এমন অভিনব চিন্তাভাবনার সূত্র কিভাবে? বিষয়টি জানার জন্য নিউ ইয়র্কে বাপ্পীর সঙ্গে যোগাযোগ করা হয়। এমন অভিজ্ঞতা একেবারে বৈচিত্রময়, হৃদয়গ্রাহী উল্লেখ করে কালের কণ্ঠকে বললেন, ‘আমি আমার রুমেই ছিলাম। জেট ল্যাগ কাটেনি। হঠাত করে দেবাশীষ দা ফোন করলেন। বললেন, টাইম স্কোয়ারে চলে আয়। দাদা আমাকে অবাক করে দিয়ে বললেন, তোর জন্মদিন পালন করবো এখানে। আমি সারপ্রাইজড। এটা আমার জন্য রীতিমতো বিস্ময়কর ছিল।’

টাইম্‌স স্কয়ার মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের নিউইয়র্ক শহরের কেন্দ্রস্থলে ম্যানহাটানে অবস্থিত একটি সড়ক চত্বর। টাইমস স্কয়ার নিয় ইয়র্ক শহরের অন্যতম প্রধান বাণিজ্যিক এলকা। একে ‘পৃথিবীর সড়ক সংযোগস্থল’ বলা হয়। এটি বিশ্বের অন্যতম ব্যস্ত পথচারী সংযোগস্থল এবং বিশ্ব বিনোদন শিল্পের অন্যতম প্রধান কেন্দ্র।

ট্রাভেল ও লেইজার ম্যাগাজিন টাইমস স্কয়ারকে বিশ্বের সবচেয়ে বেশি পরিদৃষ্ট পর্যটন স্থল হিসেবে অভিহিত করেছে। প্রতিদিন প্রায় ৩ লক্ষ মানুষ টাইমস স্কয়ার দিয়ে যাতায়াত করে। এই এলাকাটি রঙ-বেরঙের বৈদ্যুতিক আলোকসজ্জ্বা ও প্রোজ্জ্বল সাইনবোর্ডের কারণে বিখ্যাত। প্রতিবছর এখানে জাঁক জমকের সাথে খ্রিস্টীয় নববর্ষ উদযাপিত হয়ে থাকে।

বাপ্পী ১৯৮২ সালের ৬ ডিসেম্বর নারায়ণগঞ্জে জন্মগ্রহণ করেন। তিনি ইউনিভার্সিটি অফ লিবারেল আর্টস (ইউল্যাব) থেকে গণযোগাযোগ ও সাংবাদিকতা বিষয়ে পড়াশোনা করেছেন। ২০১২ সালে মাহিয়া মাহির বিপরীতে ‘ভালোবাসার রঙ’ দিয়ে চলচ্চিত্র জগতে অভিষেক হয় বাপ্পী চৌধুরীর। তার অভিনীত অন্যান্য উল্লেখযোগ্য চলচ্চিত্রগুলো হল অনেক সাধের ময়না, সুলতানা বিবিয়ানা, সুইটহার্ট, আমি তোমার হতে চাই, নায়ক, ও দাগ হৃদয়ে। এছাড়াও বাপ্পীর মুক্তির অপেক্ষায় রয়েছে বেশকিছু চলচ্চিত্র। যার মধ্যে উল্লেখযোগ্য, ৫৭০, ‘ঢাকা ২০৪০।’

আপনার বন্ধুদের সাথে এই পোস্ট টি শেয়ার করুন

Comments are closed.

সর্বশেষ সংবাদ

সাম্প্রতিক মন্তব্য

    j

    z

    y

    x

    w

    u

    t

    s

    s

    ১০

    r

    © All rights reserved © 2018 banglaekattor.com