প্রথম বাংলাদেশি বংশোদ্ভূত মুসলিম নারী হিসেবে নিউ ইয়র্কে ইতিহাস গড়লেন পূর্ণিমার বোন - বাংলা একাত্তরপ্রথম বাংলাদেশি বংশোদ্ভূত মুসলিম নারী হিসেবে নিউ ইয়র্কে ইতিহাস গড়লেন পূর্ণিমার বোন - বাংলা একাত্তর

সোমবার, ২৯ নভেম্বর ২০২১, ০৮:১২ অপরাহ্ন

শিরোনাম :
প্রথম বাংলাদেশি বংশোদ্ভূত মুসলিম নারী হিসেবে নিউ ইয়র্কে ইতিহাস গড়লেন পূর্ণিমার বোন

প্রথম বাংলাদেশি বংশোদ্ভূত মুসলিম নারী হিসেবে নিউ ইয়র্কে ইতিহাস গড়লেন পূর্ণিমার বোন

ক্তরাষ্ট্রের নিউইয়র্ক সিটি নির্বাচনে বিপুল ভোটে বিজয়ী হয়েছেন বাংলাদেশি বংশোদ্ভূত শাহানা হানিফ। তার পৈতৃক নিবাস চট্টগ্রামের ফটিকছড়ি। তিনি জনপ্রিয় অভিনেত্রী দিলারা হানিফ পূর্ণিমার ফুফাতো বোন। বোনের এই জয়ে আনন্দ প্রকাশ করে সবার কাছে দোয়া চেয়েছেন পূর্ণিমা।

গত মঙ্গলবার (২ নভেম্বর) নিউইয়র্ক সিটিতে এই নির্বাচন অনুষ্ঠিত হয়। আজ বুধবার (৩ নভেম্বর) ফলাফল প্রকাশ হয়। এই নির্বাচনে বিপুল ভোটে জিতেছেন শাহানা। প্রথম বাংলাদেশি বংশোদ্ভূত এবং প্রথম মুসলিম নারী হিসেবে নিউইয়র্কের সিটি নির্বাচনে কাউন্সিলর নির্বাচিত হয়ে রেকর্ড গড়েছেন তিনি।

ব্রুকলিনের নির্বাচনী এলাকা ডিসট্রিক্ট-৩৯ থেকে নির্বাচিত হয়েছেন শাহানা হানিফ। তিনি পেয়েছেন ২৮ হাজার ২৫২ ভোট, যা মোট ভোটের ৮৯ দশমিক ৩ শতাংশ। তার নিকটতম প্রতিদ্বন্দ্বী কনজারভেটিভ দলের প্রার্থী ব্রেট ওয়েনকফ পেয়েছেন মাত্র ২ হাজার ৫২২ ভোট, যা মোট ভোটের ৮ শতাংশ।

পূর্ণিমা বলেন, ‘শাহানার জয় আমাদের পরিবারের জন্য অনেক গর্বের একটি বিষয়। অনেক আগে থেকেই সে এর সঙ্গে জড়িত ছিল। এ জন্য অনেক স্ট্রাগলও করেছে। অবশেষে সে এর ফল পেয়েছে। খুব কম বয়সে সে এটা অর্জন করেছে। ওর জন্য দোয়া করবেন সবাই।’

পূর্ণিমার ভাষ্য, শাহানা হানিফের জন্ম এবং বেড়ে ওঠা যুক্তরাষ্ট্রেই। সর্বশেষ ২০১৬ সালে শাহানা বাংলাদেশে এসেছিলেন। মূলত বাংলা শিখতেই এসেছিলেন তিনি। আদর্শলিপি কিনে শিক্ষক রেখে প্রায় ৮-৯ মাস ধরে তিনি বাংলা শেখেন। যুক্তরাষ্ট্রের বাঙালি কমিউনিটির সঙ্গে যোগাযোগ স্থাপন করতেই দেশে এসে এত পরিশ্রম করে বাংলা শিখে যান শাহানা। এবার তারই ফল পেলেন। বাঙালিরা তাকে আপন ভেবে নিজেদের প্রতিনিধি হিসেবে নির্বাচিত করেছে।

আপনার বন্ধুদের সাথে এই পোস্ট টি শেয়ার করুন

Comments are closed.

সর্বশেষ সংবাদ

সাম্প্রতিক মন্তব্য

    © All rights reserved © 2018 banglaekattor.com