আমি আসলেই সিঙ্গেল! - বাংলা একাত্তরআমি আসলেই সিঙ্গেল! - বাংলা একাত্তর

সোমবার, ২৯ নভেম্বর ২০২১, ০৯:৪৬ অপরাহ্ন

আমি আসলেই সিঙ্গেল!

আমি আসলেই সিঙ্গেল!

আজ রাত ১০টায় আরটিভিতে রয়েছে ধারাবাহিক নাটক ‘টুইন ভিলেজ’। নাটকের অন্যতম অভিনয়শিল্পী শারমীন জোহা শশী। সাম্প্রতিক ভাবনা ও জীবনযাপন নিয়ে কথা বললেন এই শিল্পী।
কেমন আছেন? কী করছেন?
ভালো আছি। ধন্যবাদ। টুকটাক কাজ করছি। শুটিং করে এলাম ‘টুইন ভিলেজ’ নাটকের।
করোনার এই সময়ে শুটিংয়ের পরিবেশ কেমন?
মেকআপ দিয়ে মাস্ক ব্যবহার করা যায় না। স্যানিটাইজারের ব্যবহার কমে গেছে। জানি না এর ফল কী হবে। মানুষের ভয় কমে যাচ্ছে কি না, কে জানে! সত্যি বলতে, যেভাবে মেইনটেইন করা দরকার, মনে হচ্ছে সেভাবে করা যাচ্ছে না।

সম্প্রতি কী কী দেখলেন টিভি বা অনলাইনে?
‘ঊনলৌকিক’ দেখলাম। চঞ্চল ভাই-তিশাদের গল্পটা ভালো লেগেছে। ‘মোহমায়া’, ‘রবীন্দ্রনাথ এখানে কখনো খেতে আসেননি’ ভালো লেগেছে। আমার আসলে ইদানীং যা দেখছি, ভালো লাগছে। আমি দেশ-বিদেশের সবই দেখার চেষ্টা করি।
আপনি আড্ডা দেন না? বিনোদন অঙ্গনের কোনো জমায়েতেই আপনাকে দেখা যায় না।
খুব কম আড্ডা দিই। আর আমার ঠিক আলাদা করে কোথাও যাওয়া হয় না। আমি সাধারণত শুটিং আর কাজের মধ্যেই থেকেছি। আমার বরং আগ্রহ বিচিত্র ক্যারেক্টারে, যেখানে চ্যালেঞ্জ থাকবে, পড়াশোনা করতে হবে, ভাবতে হবে। এসবই আমি বেশি এনজয় করি। ভালোবেসে, মন দিয়ে যদি কাজ করি, তাহলে আসলে আড্ডার সময় পাওয়া যায় না। তা ছাড়া করোনার মধ্যে তো প্রায় দেড় বছর কোনো কাজই করিনি।

করা হয়নি, কিন্তু করতে চান, এ রকম কোনো চরিত্রের জন্য লোভ হয়?
আমি প্রতিদিনই শিখি। প্রতিদিনই মনে হয় কত কিছু অজানা। প্রতিদিনই মনে হয় একটু এক্সপেরিমেন্ট করি। তাই আমার করতে ইচ্ছা হয়, এ রকম চরিত্রের সীমা নেই। পরীক্ষামূলক কিছু কাজ করতে চাই, অ্যাফোর্ট দিতে প্রস্তুত। আমি চাই, আমার কাছে সে রকম গল্প আসুক, অপেক্ষায় আছি। অনেক ভালো ভালো কাজ হচ্ছে। সেগুলোর সঙ্গে থাকাও একটা ভালো লাগা। ওটিটির কাজের বাজেট বেশি, এক্সপেরিমেন্ট করা যায়, অনেক কাজ করার সুযোগ থাকে।

মূলধারার ছবিতে আমরা আপনাকে দেখলাম না।
আমার পক্ষে সবকিছু করে ফেলা সম্ভব না। নিজের প্রতি আমার অ্যাসেসমেন্ট হচ্ছে, নাচ-গানওয়ালা ছবির জন্য আমি আসলে ফিট না। আমি এমন কিছু করতে পারব না, যা আমার সঙ্গে যায় না। দশটা লোকের গালি খাওয়ার চেয়ে বরং নিজের জন্য ফিট না, সে রকম কাজ না করাই ভালো। যেখানে সেট হব, যেখানে কাজ করে আনন্দ পাব, সেখানেই করতে চাই।

আমাদের দেশের অনেকে সীমান্তের ওপারে গিয়ে কাজ করছেন? আপনার ইচ্ছা করে না?
করে। যে আর্টিস্ট, তার ভালো কাজের প্রতি লোভ থাকে। চেষ্টা, পরিশ্রমের সঙ্গে আসলে লাকটাও ফেভার করতে হয়। আমার যোগাযোগটা কম, এটা একটা সমস্যা। বাইরে গেলে সার্কেল বাড়ে। আমার বাইরে যাওয়া হয় না।
বিয়ের খবর শুনি প্রায়ই। বিয়ে করেছেন?
বিয়ে নিয়ে আপাতত ভাবছি না। মাঝে পরিবার থেকে বিয়ের চাপ দিয়েছিল। আমিই বলেছি, আরও পরে বিয়ে করতে চাই। আপাতত নিজের মতো কাজ করে যেতে চাই। বিয়ে করলে সবাইকে জানিয়েই করতে চাই। ফেসবুকে আমার রিলেশন স্ট্যাটাস সিঙ্গেল, আমি আসলেই সিঙ্গেল।

আপনার বন্ধুদের সাথে এই পোস্ট টি শেয়ার করুন

Comments are closed.

সাম্প্রতিক মন্তব্য

    © All rights reserved © 2018 banglaekattor.com