মেয়ের জন্য মা থেকে ‘বাবা’ হয়ে ওঠার গল্প - বাংলা একাত্তরমেয়ের জন্য মা থেকে ‘বাবা’ হয়ে ওঠার গল্প - বাংলা একাত্তর

বুধবার, ২২ সেপ্টেম্বর ২০২১, ০৫:১৮ পূর্বাহ্ন

মেয়ের জন্য মা থেকে ‘বাবা’ হয়ে ওঠার গল্প

মেয়ের জন্য মা থেকে ‘বাবা’ হয়ে ওঠার গল্প

সন্তানের জন্য একজন মা যেকোনো ঝুঁকি গ্রহণ করতে পারেন। এমনকি অনেকসময় অসম্ভবকেও সম্ভব করতে পারেন। আর এই কথারই অনন্য উদাহরণ পাকিস্তানের নারী ফারহিন।

মেয়েকে নিরােপদে বড় করে তুলতে গিয়ে এই নারী পাল্টে ফেলেছেন নিজের পরিচয়কেই। পুরুষতান্ত্রিক সমাজে মেয়েকে নিয়ে নিরাপদে বেঁচে থাকতে তিনি ধারণ করেছেন পুরুষের ছদ্মবেশ। মেয়ের মা থেকে হয়ে উঠেছেন মেয়ের বাবা।

মূলত তরুণী বয়সে অন্তঃসত্ত্বা অবস্থায় প্রেমিককে ভরসা করে পরিবারের বিরুদ্ধে গিয়ে ঘর বেঁধেছিলেন তিনি। কিন্তু, সেই সন্তান পৃথিবীর আলো দেখার আগেই তাকে একা রেখে পালিয়ে যায় প্রেমিক। তবে থেমে থাকেননি ফারহিন ইশতিয়াক। জন্ম দেন একটি ফুটফুটে কন্যা সন্তানের।

কিন্তু এ নিষ্ঠুর সমাজ একলা মায়েদের সহজে ছেড়ে দেয় না। তাই একলা মা থেকে পুরুষ সেজে বাবা পরিচয়ে এই সমাজে মেয়েকে মানুষ করে চলেছেন লাহোরের ফারহিন ইশতিয়াক।

ফারহিনের কথা প্রথম জানা যায় পাকিস্তানের লেখক জাইন উল হাসানের লেখা একটি টুইট থেকে। তখন ফারহিনের বয়স ছিল ৪১। পাকিস্তানের লাহোর শহরের আনারকলি বাজারে ছোট্ট একটি দোকান আছে তার। সবাই সেখানে তাকে পুরুষ হিসেবেই চেনেন, প্রতিদিনই তিনি পুরুষদের মত পোশাক পরে দোকানে বসেন।

ফারহিন জানান, এই সমাজ একলা মায়েদের সহজে মেনে নেয় না, কৌতূহল আর ঘৃণার দৃষ্টিতে তাকায়। তাই তিনি “মা” হয়েও সন্তানের “বাবা” সেজে থাকার পথ বেছে নিয়েছেন।

আপনার বন্ধুদের সাথে এই পোস্ট টি শেয়ার করুন

Comments are closed.

সর্বশেষ সংবাদ

সাম্প্রতিক মন্তব্য

    © All rights reserved © 2018 banglaekattor.com