শনিবার, ২৪ Jul ২০২১, ০১:১৩ পূর্বাহ্ন

রোনালদোর এক কাণ্ডে ৩৩ হাজার কোটি খোয়াল কোকাকোলা

রোনালদোর এক কাণ্ডে ৩৩ হাজার কোটি খোয়াল কোকাকোলা

ইউরোর অফিসিয়াল স্পন্সর কোকাকোলা। একারণেই সংবাদ সম্মেলনের টেবিলে ছিলো কোকাকোলার বোতল। কিন্তু পর্তুগালের সংবাদ সম্মেলনের শুরুতেই কোকাকোলার বোতলটি দূরে সরিয়ে রাখেন রোনালদো। পানির বোতলটি সামনে টেনে নিয়ে বলেন ‘পানি খান’।

আর রোনালদোর এই এক কান্ডেই ৩৩ হাজার কোটি টাকা খুইয়েছে কোকাকোলা। তবে কি কারণে কাজটা করেছেন ক্রিস্টিয়ানো রোনালদো, এখনো বোঝা যাচ্ছে না। ধাীণা করা হচ্ছে স্বাস্থ্যসচেতন রোনালদো কোমল পানীয় ভুলে পানি খেতে বলেছেন সবাইকে। কিন্তু টেবিল থেকে সরিয়ে তো দিয়েছেন কোকাকোলাকে। আর সে কারণেই শেয়ারবাজারে নেতিবাচক প্রভাব পড়েছে অনেক। মাত্র আধঘণ্টার মধ্যে কোকাকোলার ব্র্যান্ড মূল্য ৪০০ কোটি ডলার কমে গেছে।

অর্থাৎ রোনালদোর এক কাণ্ড কোকাকোলার ৩৩ হাজার ৯১৫ কোটি টাকা খসিয়ে দিয়েছে। অনেকে ভাবছে রোনালদো হয়ত কোকাকোলার প্রতিদ্বন্দী পেপসির জন্য এটা করছেন। তবে এখনও এর কোনো প্রমাণ পাওয়া যায়নি। এছাড়া স্বাস্থ্য সচেতন রোনালদো এর আগেও কোকাকোলার বিপক্ষে কথা বলেছিলেন। সেটা একটু অন্যভাবে। নিজের ছেলেকে কীভাবে শাসন করেন, সে প্রসঙ্গে বলেছিলেন, তার ছেলেকে কড়া শাসনে রাখেন। মাঝেমধ্যে সে কোক বা ফান্টা খায়, চিপসও খায়। যদিও সে জানে তিনহ এটা পছন্দ করেন না।

এ ছাড়া রোনালদো ৩৬ বছরেও তরুণদের মতো শরীরী গঠন ধরে রাখতে কঠোর পরিশ্রম করেন। আর সে জন্য অতিথিদেরও ভুগতে হয় তাঁর বাসায়। এ নিয়ে প্যাট্রিক এভরা একবার বলেছিলেন,তিনি একবার রোনালদোর বাসায় গিয়েছিলাম ক্ষুধা নিয়ে। কিন্তু খাবার টেবিলে শুধু একটা সালাদ, মুরগির বুকের মাংস আর পানি চিলো। কোনো পানীয় ছিলোনা।

প্রসঙ্গত, সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে ফেসবুক, টুইটার ও ইনস্টাগ্রাম মিলিয়ে ৫৩ কোটি মানুষ রোনালদোকে অনুসরণ করেন। এর মধ্যে ইনস্টাগ্রামেই অনুসারী বেশি তাঁর। ইনস্টাগ্রামে ২৯ কোটি ৮০ লাখ ফলোয়ার। আর ইনস্টাগ্রামের এই অনুসারীসংখ্যা রোনালদোর জন্য অনেক বড় আয়ের উৎস। ২০১৯ সালের এক গবেষণায় দেখা গেছে ইনস্টাগ্রামে পণ্যের দূতিয়ালি করার জন্য প্রতি পোস্ট বাবদ ৯ লাখ ৭৫ হাজার ডলার আয় করতে পারেন রোনালদো।

আপনার বন্ধুদের সাথে এই পোস্ট টি শেয়ার করুন

Comments are closed.

সাম্প্রতিক মন্তব্য

    © All rights reserved © 2018 banglaekattor.com